Friday , December 4 2020
Home - রংপুর বিভাগ - রংপুর - খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতেই নির্বাচনে অংশগ্রহণ: মির্জা ফখরুল
uttarancholnews24

খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতেই নির্বাচনে অংশগ্রহণ: মির্জা ফখরুল

রংপুর সংবাদদাতা : বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ক্যাসিনো সৃষ্টিকারী জুয়াড়ি, চাঁদাবাজ, জনগণের অধিকার কেড়ে নেয়া এই সরকার একদলীয় শাসনব্যবস্থা কায়েম করেছে। এই জুয়াড়িদের হাত থেকে দেশরক্ষা ও খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতেই আমরা রংপুরের নির্বাচনে অংশ নিয়েছি।

গতকাল সোমবার বিকালে রংপুর-৩ আসনের উপনির্বাচনে ধানের শীষের প্রার্থী রিটা রহমানের পক্ষে নগরীর পায়রা চত্বরে এক পথসভায় তিনি এসব কথা বলেন। এদিকে এ সভার পরে অপর একটি পথসভায় যাওয়ার সময় ট্রাকের অস্থায়ী মঞ্চ থেকে পড়ে আহত হয়েছেন মির্জা ফখরুল।

ধানের শীষে ভোট প্রার্থনা করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, রংপুরে জনগণের আনেক বীরত্বগাথা ইতিহাস আছে। রংপুরের সন্তান কৃষক আন্দোলনের বীর পুরুষ নুরুদ্দীনের অমর সেই স্লোগান- ‘কোনঠে বাহে জাগো সবাই’। তাই সময় এসেছে আজ রংপুরবাসীকে জেগে ওঠার।

আপনাদের এলাকার মানুষ, ভারতীয় উপমহাদেশের প্রখ্যাত রাজনীতিক মশিউর রহমান যাদু মিয়ার যোগ্য সন্তান রিটা রহমানকে বিএনপি মনোনয়ন দিয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি, ধানের শীষের বিজয় মানে রংপুরের মানুষের বিজয়। কারণ এই রংপুরবাসী অতীতেও ধানের শীষের সঙ্গে ছিল।

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক (রংপুর বিভাগ) সাবেক উপমন্ত্রী অধ্যক্ষ আসাদুল হাবিব দুলুর সভাপতিত্বে সভায় আরও বক্তব্য দেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, যুগ্ম মহাসচিব ও ঢাকা দক্ষিণের সভাপতি হাবিব উন নবী খান সোহেল, সাবেক সংসদ সদস্য জহির উদ্দিন স্বপন, সাংগঠনিক সম্পাদক (ঢাকা বিভাগ) শামা ওবায়েদ, নির্বাহী কমিটির সদস্য মজিবুর রহমান, ইশরাফ হোসেন, সাংবাদিক শায়রুল কবির, রংপুর-৩ আসনে ধানের শীষের প্রার্থী রিটা রহমান প্রমুখ।

এ ছাড়াও নগরীর শাপলা চত্বরে পৃথক এক পথসভায় বক্তব্য দেন যুবদল কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সভাপতি আবদুল খালেক, গাইবান্ধা জেলা বিএনপি সভাপতি ডা. মইনুল হাসান সাদিক, দিনাজপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সামসুজ্জামান সামু, সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম মিজু, জেলা সভাপতি সাইফুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক রইচ আহমেদ প্রমুখ।

ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু বলেন, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকার ক্যাসিনোর আড়ালে দেশকে বিক্রি করার ষড়যন্ত্র করছে। এই ক্যাসিনো কী, আমরা আগে তো এই নাম শুনিনি। আওয়ামী লীগ জনগণকে ক্যাসিনো দেখাল, খেলা শেখাল। মানুষের সর্বস্ব লুট করে নিল।

হাবীব উন নবী খান সোহেল বলেন, রিটা রহমান নির্বাচিত হলে আপনারা তার কাছ থেকে মা ও বোনের আচরণ পাবেন। তার দরজা আপনাদের জন্য খোলা থাকবে।

অধ্যক্ষ আসাদুল হাবীব দুলু বলেন, আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতারা ক্যাসিনোয় কোটি কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ গড়েছে। বিদেশে টাকা পাচার করেছে। সরকার ক্যাসিনোর আড়ালে দেশকে জুয়ার দেশে পরিণত করেছে।

অস্থায়ী মঞ্চ থেকে পড়ে আহত ফখরুল : রংপুর মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সামসুজ্জামান সামু জানান, নগরীর পায়রা চত্বরে নির্বাচনী পথসভা শেষে মির্জা ফখরুল ট্রাকের অস্থায়ী মঞ্চে চড়ে শাপলা চত্বরে অপর একটি পথসভায় যাচ্ছিলেন।

প্রেস ক্লাবের সামনে যানজটে ট্রাক হঠাৎ ব্রেক করলে তিনি ট্রাকের ওপরে পড়ে গিয়ে বাম হাতে ও আঙুলে গুরুতর আঘাত পান। তার আঙুল কেটে রক্ত বেরোয়। পরে তাৎক্ষণিকভাবে তাকে নগরীর প্রাইম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

সেখানে চিকিৎসক জানান, তার ডায়াবেটিস ফল্ট করেছিল এবং তিনি বুকেও ব্যথা পেয়েছেন। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তিনি সন্ধ্যায় ঢাকার উদ্দেশে রওনা দেন।

রংপুর মহানগর ও জেলা বিএনপির নেতারা অভিযোগ করেন, নির্বাচনী পথসভার মঞ্চ করার অনুমতি চাওয়া হয়েছিল। কিন্তু আচরণবিধির কথা বলে নির্বাচন কমিশন অনুমতি দেয়নি। তাই ট্রাকে অস্থায়ী মঞ্চ তৈরি করা হয়।