Sunday , September 25 2022
Home - শিক্ষাঙ্গনের খবর - খেলার মাঠে দ্বন্দ্ব থামাতে গিয়ে আহত রাবি প্রক্টর

খেলার মাঠে দ্বন্দ্ব থামাতে গিয়ে আহত রাবি প্রক্টর

রাবি প্রতিনিধিঃ
আন্তঃবিভাগ ফুটবল খেলায় রেফারির দেয়া সিদ্ধান্তকে কেন্দ্র করে হওয়া দ্বন্দ থামাতে গিয়ে আহত হয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর।বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শেখ কামাল স্টেডিয়ামে এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগ ও রসায়ন বিভাগে আন্তঃবিভাগ ফুটবল খেলা চলছিল। নির্ধারিত সময়ে উভয় দল ১-১ গোল করে।
এক পর্যায়ে খেলা ট্রাইবেকারে গড়ায়। প্রথম দু’টি শুটে গোল পায় রসায়ন বিভাগ। অপরদিকে প্রথম দু’টি শুটে গোল দিতে ব্যর্থ হয় আইন বিভাগ। রসায়ন বিভাগের খেলোয়াড়ের তৃতীয় শুট গোলবারে সীমানা অতিক্রম করে ফিরে আসে।
সেটাকে গোল হিসেবে ঘোষণা দেয় রেফারি। কিন্তু এ সিদ্ধান্ত না মেনে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে আইন বিভাগের শিক্ষার্থীরা। তারপর গ্যালারিতে থাকা আইন বিভাগের শিক্ষার্থীরা গেট দিয়ে মাঠে ঢুকার চেষ্টা করলে বাঁধা দেয়া হয়।
পরবর্তী খবর পেয়ে ঘটনা নিয়ন্ত্রণের চেষ্টায় স্টেডিয়ামে যান বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক আসাবুল হক। তিনি দরজা দিয়ে ঢুকতে গেলে পিছন দিক দিয়ে আইন বিভাগের শিক্ষার্থীরা জোরে দরজা ধাক্কা দেয়, ফলে দরজার আঘাতে মাথা ফেটে আহত হন প্রক্টর।
এ ঘটনায় আহত বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক আসাবুল হক বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টার থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন। এখন তিনি অনেকটা সুস্থ আছেন। এ ঘটনাকে শৃঙ্খলা বোধের চরম অবক্ষয় বলছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।
তারা বলছেন, গত কয়েকমাসে বিশ্ববিদ্যালয়ে খেলাকে কেন্দ্র করে বেশ কয়েকটি মারামারি ও বিশৃঙ্খল ঘটনা ঘটেছে। যা বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো জায়গায় কাম্য নয়। শিক্ষার্থীদের মধ্যে সমঝোতাবোধ কিংবা মেনে নেয়ার মানসিকতা ব্যাপকভাবে কমে গেছে। তাই এই সংস্কৃতি থেকে দ্রুত শিক্ষার্থীদের বেরিয়ে আসার কথা বলছেন তারা।
বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক হাসিবুল আলম প্রধান বলেন, প্রক্টরের সাথে যা ঘটেছে, সেটা একটা দুর্ঘটনাবশত ঘটেছে। তবে খেলাধুলা সম্প্রীতি বজায় রাখার একটি মাধ্যমে। যার মাধ্যমে মানুষের মাঝে সম্প্রীতির সৃষ্টি হয়। তাই খেলাধুলা করতে গিয়ে শিক্ষার্থীদের মধ্যে এমন কোন ধরণের অপ্রীতিকর ঘটনা কাম্য নয়। তাই বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষার্থীকেই সহনশীল আচরণ বজায় রাখতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *